IC Markets ব্রোকার রিভিউ – ২০১৯

12
594

ICMarkets Review – ফরেক্স ট্রেড করার জন্য প্রায় হাজার খানেক বিভিন্ন ধরনের ব্রোকার রয়েছে এবং বিভিন্ন ভাবে তারা সেবা প্রদান করে আসছে। এখন প্রশ্ন হচ্ছে, আপনি কোনও ব্রোকার নির্বাচন করে ট্রেড শুরু করবেন? বিষয়টি গুরুত্বপূর্ণ কেননা, ভালো ট্রেড করার জন্য একটি ভালো ব্রোকার হওয়া আবশ্যক। ট্রেড করার জন্য ব্রোকার একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হিসাবে কাজ করে। কিন্তু একজন নতুন ট্রেডার হিসাবে নিজের জন্য প্রছন্দের ব্রোকার নির্বাচন করা এক কথায় কষ্টকর। কারণ, একজন নতুন ট্রেডার এর পক্ষে বিভিন্ন ব্রোকার যাচাই-বাছাই করা সম্ভব নয়। এর জন্যই আমাদের আজকের আর্টিকেল। আমরা প্রতিনিয়ত চেষ্টা করেছি জনপ্রিয় সকল ব্রোকার এবং এদের সার্ভিস সম্পর্কে আপনাদের সাথে পরিচয় করিয়ে দেয়ার। এক এক ব্রোকার এর এক এক ধরনের সুযোগ-সুবিধা রয়েছে কিন্তু সমস্যা দেখা দেয়, একজন নতুন হিসাবে আপনি এই সুবিধা আপনার ট্রেডের জন্য কিভাবে ব্যবহার করবেন। আমরা চেষ্টা করছি এই বিষয়গুলো আপনার সামনে সহজভাবে উপস্থাপন করার। আজকের ICMarkets Review আর্টিকেলে, এই ব্রোকার এর সকল ভালো এবং খারাপ দিকসমূহ আপনাদের সামনে তুলে ধরবো এবং জানাবো এই ব্রোকার এর বিস্তারিত রিভিউ সম্পর্কে। তাহলে চলুন শুরু করি –

ICMarkets Review এর পূর্বে –

যেকোনো ব্রোকার এর ভালো কিংবা মন্দ খুঁজে পাওয়ার সবচেয়ে সহজ উপায় হচ্ছে ব্রোকারের সাপোর্ট এবং আরও কিছু গুরুত্বপূর্ণ বিষয় সম্পর্কে খোঁজ খবর নেয়া। ব্রোকার সম্পর্কে রিভিউ প্রদান করার জন্য আমরা কিছু বিষয় সম্পর্কে যাচাই-বাছাই করেছি এবং এর ভিত্তিতেই রিভিউ প্রদান করেছি। রিভিউ প্রদান করার জন্য আমরা নিম্নোক্ত ৭টি বিষয় এর উপরে লক্ষ্য রাখবো।

  1. এক্সিকিউশন টাইম
  2. ফান্ড প্রসেসিং টাইম
  3. ফান্ড সিকিউরিটি
  4. ব্রোকার সাপোর্ট সিস্টেম
  5. বিভিন্ন বোনাস এবং প্রমোশন
  6. লিভারেজ
  7. স্প্রেড

ICMarkets Review – এক্সিকিউশন

এখানে এক্সিকিউশন টাইম হচ্ছে, আপনি যখন রিয়েল ট্রেড করেন সেটা ঠিক কি পরিমাণ সময়ের মধ্যে হয়। আরও সহজ করে যদি বলি তাহলে, এন্ট্রি নেয়ার জন্য কি পরিমাণ সময়ে লাগে সেটাকে বোঝাতে চেয়েছি। বিষয়টি গুরুত্বপূর্ণ কারণ, যদি আপনার কোনও এন্ট্রি গ্রহন করতে বেশী পরিমাণ সময় লাগে তাহলে আপনার টার্গেট পিপ্স লস হয়ে যেতে পারে। এই ব্রোকারের এক্সিকিউশন টাইম হচ্ছে এভারেজ। অর্থাৎ, তাৎক্ষণিক যে এন্ট্রি হয়ে যাবে সেটা নয়। যার কারনে যারা খুব বেশী পরিমাণ মুভমেন্ট এর সময় ট্রেড করতে পছন্দ করেন যেমন, নিউজ ট্রেডিং এর সময় কিছুটা সমস্যা হতে পারে। আমাদের অভিজ্ঞতা অনুসারে, নিউজ ট্রেডিং এর সময় কিছূটা বিলম্ব হওয়াটা স্বাভাবিক। অতিরিক্ত মুভমেন্ট এর কারনে এন্ট্রি গ্রহন করার সময় “Re-Quote” হতে দেখা যায় যার কারনে আপনি যেই প্রাইসে এন্ট্রি নিয়েছেন সেখানে এন্ট্রি নাও হতে পারে। তবে এই সমস্যা এড়ানোর জন্য আই সি মার্কেট ব্রোকার, ট্রেডারদের অতিরিক্ত VPS সুবিধা প্রদান করে থাকে যার মাধ্যমে আপনি চাইলে সেটি গ্রহন করে তারপর ট্রেড করতে পারবেন। অর্থাৎ এই VPS সুবিধা ব্যবহার করার মাধ্যমে আপনার ট্রেড এক্সিকিউশন এর সময় অনেকাংশেই কমে যাবে বলে আমাদের বিশ্বাস।

ICMarkets Review – ফান্ড প্রসেসিং

অনেক ট্রেডার চাইলেও এই ব্রোকারে ট্রেড শুরু করতে পারেন না কেননা এর মূল কারণ হচ্ছে, এদের সর্বনিম্ন ফান্ড ডিপোজিট হচ্ছে $200 ডলার। যার কারণে আমাদের দেশ থেকে অনেক ট্রেডার চাইলেও এই ব্রোকার ফান্ড ডিপোজিট করতে পারেন না। তবে ফান্ড ডিপোজিট কিংবা উত্তোলন করার ক্ষেত্রে তেমন কোনও ধরনের কোনও সমস্যা এখন পর্যন্ত আমাদের হয় নি।

আই সি মার্কেট ব্রোকার এর মাধ্যমে ফান্ড ডিপোজিট এবং উত্তোলন করার জন্য Neteller এবং Skrill এর মাধ্যম আমরা ব্যবহার করেছিলাম এবং এর মাধ্যমে ফান্ড ট্র্যান্সফার করতে কোনও ধরনের সময় লাগে নি। অর্থাৎ প্রায় তাৎক্ষনিক ফান্ড ডিপোজিট করার সুবিধা এই ব্রোকার প্রদান করে থাকে। তবে ফান্ড উত্তোলন করার ক্ষেত্রে কিছুটা সময় অপেক্ষা করতে হবে। ফান্ড ডিপোজিট করার মতন, ফান্ড উত্তোলন প্রক্রিয়ার জন্য এই ব্রোকার তাৎক্ষনিক প্রদান করে না তবে ২৪ঘন্টা এর মধ্যে আপনাকে সেই ফান্ড উত্তোলন প্রক্রিয়া সম্পন্ন করা হবে। এক্ষেত্রে বলে রাখা ভালো, আপনি যদি বাংলাদেশ সময় সকাল ৭ টার মধ্যে ফান্ড উত্তোলন করার রিকোয়েস্ট করতে পারেন তাহলে সেদিন এর মধ্যেই উত্তোলন প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়ে যাবে। আর যদি সেটা না হয়, তাহলে কষ্টকরে আপনাকে পরের কার্যদিবস এর জন্য অপেক্ষা করতে হবে।

ICMarkets Review – ফান্ড সিকিউরিটি

সব ট্রেডারই, ব্রোকারে ফান্ড ডিপোজিট করে কিছুটা চিন্তার মধ্যে থাকেন। কেননা এই অর্থ হারিয়ে যাবে না ত কিংবা ব্রোকার টাকা মেরে দেবে না ত? আমরা জানি, এই চিন্তা করাই স্বাভাবিক। কেননা, ভাই এগুলো আমাদের কষ্টের টাকা। ট্রেড করে যদি টাকা লস করে ফেলি তাও কষ্ট লাগবে না যতটা লাগবে যদি ব্রোকার ফান্ড উত্তোলন করতে না দেয় কিংবা আমাদের বিনিয়োগকৃত অর্থের সুরক্ষা প্রদান না করে। যেহেতু বাংলাদেশে কোনও ব্রোকার রেগুলেটেড নয় অর্থাৎ, কোনও ব্রোকার যেহেতু সরাসরি আমাদের দেশে সেবা প্রদান করতে পারে না সেখত্রে আমরা সবসময়ই সকল নতুন এবং পুরাতন ট্রেডারকে একটি ভালো রেগুলেটেড ব্রোকার নির্বাচন করে তারপর ট্রেড করার পরামর্শ প্রদান করে থাকি।

ICMarkets রেগুলেশন এর দিকে থেকে অনেক বেশী নির্ভরযোগ্য এবং এটি অস্ট্রেলিয়ান সিকিউরিটি এক্সচেঞ্জ এবং রেগুলেটরি কমিশন এর থেকে নিয়ন্ত্রিত এবং অনুমোদিত যার ফলে আপনার বিনিয়োগকৃত অর্থের সুরক্ষা প্রদানের ক্ষেত্রে কোনও চিন্তা কিংবা সন্দিহান হবার কোনও প্রয়োজন নেই।

এই ব্রোকার এর সিকিউরিটি সিস্টেম যথেষ্ট শক্তিশালী। আপনি যখনই ব্রোকার থেকে কোনও পরিমাণ ফান্ড ডিপোজিট কিংবা উত্তোলন করতে যাবেন তখন আপনাকে ক্লায়েন্ট ক্যাবিনেটে লগইন করে তবেই করতে হবে। অর্থাৎ আই সি মার্কেট এর সাইটে লগইন করে তারপর ফান্ড উত্তোলন করে নিতে হবে। বেশীরভাগ ব্রোকার এই দেখা যায়, ট্রেডিং আইডি এবং পাসওয়ার্ড ব্যবহার করে ফান্ড উত্তোলন করে নিতে হবে। তবে এই ব্রোকারে আপনাকে ফান্ড উত্তোলন করার জন্য আপনার ভিন্ন আইডি এবং পাসওয়ার্ড ব্যবহার করে তবেই ফান্ড উত্তোলন করতে পারবেন।

ICMarkets Review – ব্রোকার সাপোর্ট

গ্রাহক সহায়তার দিকে থেকেও এই ব্রোকার অনেকবেশী নির্ভরযোগ্য। প্রায় ৭টি দেশের ভাষায় এই ব্রোকার সাপোর্ট প্রদান করে থাকে। তবে আন্তরিকভাবে দুঃখিত, এই ব্রোকার এখন পর্যন্ত বাংলা ভাষায় সাপোর্ট প্রদানের মাধ্যম নেই। তবে আপনি ইংরেজি ভাষায় সপ্তাহের ৭ দিনই সেবা গ্রহন করতে পারবেন।

এছাড়াও, এই ব্রোকারের রয়েছে লাইভ চ্যাট এর সুবিধা যেটি সপ্তাহের ৫ দিন ২৪ ঘণ্টা খোলা থাকবে যার মাধ্যমে আপনি তাৎক্ষণিক চ্যাট করার মাধ্যমে ব্রোকার এর থেকে প্রয়োজনীয় সহায়তা গ্রহন করতে পারবেন। এছাড়াও, ইমেইল কিংবা ফোন করেও আপনি ব্রোকারের সাপোর্ট টীম এর সাথে প্রয়োজনীয় সহায়তা গ্রহন করতে পারবেন।

ICMarkets Review – বোনাস এবং প্রমোশন

অনেকেই আছেন যারা ব্রোকারের প্রদত্ত বিভিন্ন বনা অফার নিয়ে রিয়েল ট্রেড শুরু করতে চান। তবে আন্তরিকভাবে দুঃখিত, এই ব্রোকার তেমন বিশেষ কোনও বোনাস অফার এর সুবিধা প্রদান করে না। তবে কিছু কিছু নির্দিষ্ট ট্রেডিং একাউন্ট এর ক্ষেত্রে এই ব্রোকার অতিরিক্ত কিছু বোনাস অফার প্রদান করে থাকে। তবে সেটি সবার জন্য নয়।

সুতরাং, যারা বোনাস এমাউন্ট গ্রহন করে ট্রেড শুরু করতে চান তাদের জন্য এই ব্রোকার আপনার জন্য সহায়ক নাও হতে পারে। এই ব্রোকারের বিভিন্ন ধরনের বোনাস এমাউন্ট সম্পর্কে জানতে চান তাহলে অনুগ্রহ করে আমাদের বোনাস পোর্টাল দেখুন। আমাদের এই বোনাস পোর্টাল এর মধ্যে প্রায় বিভিন্ন ব্রোকারের ৩০০ এর উপরে বিভিন্ন ধরনের বোনাস অফার এর তথ্য পাবেন যেখান থেকে আপনার জন্য সুবিধাজনক বোনাসটি গ্রহন করে রিয়েল ট্রেড শুরু করতে পারেন।

ICMarkets Review – লিভারেজ

যেসব ট্রেডার লিভারেজ এর মাধ্যমে ট্রেড করতে পছন্দ করেন তাদের জন্য এই ব্রোকার এক কথায় আদর্শ। কোনও ধরনের বিধি-নিষেধ ছাড়াই, ব্রোকার আপনাকে 1:500 পর্যন্ত লিভারেজ এর সুবিধা প্রদান করে থাকে এবং এর জন্য আপনাকে কোনও নির্দিষ্ট পরিমাণ এমাউন্ট ডিপোজিট করতে হবে না। অর্থাৎ, আপনি যদি বেশী পরিমাণ লিভারেজ গ্রহন করে ট্রেড করতে অভ্যস্ত থাকেন তাহলে এটি আপনার জন্য একটি অতিরিক্ত সুবিধা হতে পারে।

বি:দ্র: লিভারেজ এবং মার্জিনাল ট্রেডিং সবার জন্য, বিশেষ করে নতুনদের জন্য নয়। অতিরিক্ত লিভারেজ, আপনার বিনিয়োগ এর ক্ষতির কারণ হয়ে উঠতে পারে। সুতরাং, অতিরিক্ত লিভারেজ এর মাধ্যমে ট্রেড করার পূর্বে অনুগ্রহ করে আমাদের লিভারেজ এবং মার্জিন আর্টিকেলটি গুরুত্তের সহকারে পড়ে নিবেন।

ICMarkets Review – স্প্রেড

সহজ কথায় স্প্রেড হচ্ছে, আপনি যেই এন্ট্রি নিবেন সেটার প্রদত্ত বাই প্রাইস এবং সেল প্রাইস এর মধ্যবর্তী গ্যাপ। এই গ্যাপকেই বলা হয় স্প্রেড যা ব্রোকারের প্রফিট হিসাবে বিবেচিত থাকে। স্প্রেড হচ্ছে ট্রেডারদের জন্য লস, কেননা আপনি কারেন্সি পেয়ারে যেখানে এন্ট্রি নিবেন স্প্রেড এর পরিমাণ বেশী হলে সেটি বেশী লসে ওপেন হবে। অর্থাৎ, যেই ব্রোকারে স্প্রেড এর পরিমাণ কম সেই ব্রোকার সবসময়ই ট্রেডারদের জন্য লাভজনক।

এখন স্প্রেড ছাড়া ট্রেড করা সম্ভব নয়। তাই, যেই ব্রোকারে স্প্রেড এর পরিমাণ কম সেই ব্রোকারকেই ট্রেডাররা পছন্দ করে থাকেন। ICMarkets ব্রোকারে স্প্রেড এর পরিমাণ অন্যান্য ব্রোকার এর তুলনায় অনেক কম। আর্টিকেল এর শুরুতেই বলেছিলাম, এক এক ব্রোকার এর এক ধরনের বিশেষ সুবিধা থাকে। আই সি মার্কেট ব্রোকার এর জনপ্রিয়তার সবচেয়ে বড় কারণ হচ্ছে সবচেয়ে কম স্প্রেড এর মাধ্যমে ট্রেড করতে দেয়ার সুবিধা। বিভিন্ন ধরনের একাউন্ট ভেদে এই ব্রোকার এর স্প্রেড শুরু হয় 0.0 থেকে যা অন্যান্য অনেক নামীদামী ব্রোকার এর তুলনায় অনেকাংশে কম। অর্থাৎ, অতিরিক্ত স্প্রেড এই ব্রোকার চার্জ করে না। যারা কম স্প্রেড এর মাধ্যমে ট্রেড শুরু করতে চান, তাদের জন্য ICMarkets ব্রোকার এর দ্বিতীয় কোনও নাম নেই।

লক্ষ্য লরুন – 

একজন ট্রেডার হিসাবে, আপনি নিজ পছন্দের যেকোনো ব্রোকারে ট্রেড শুরু করতে পারেন। তবে যেহেতু আপনি সম্পূর্ণ নতুন হিসাবে ট্রেড শুরু করছেন কিংবা নিজ ব্রোকার পরিবর্তন করতে চাচ্ছেন সেক্ষেত্রে এই রিভিউ প্রদানের মাধ্যমে আমরা শুধুমাত্র সহায়তা করার চেষ্টা করেছি। আমাদের এই ICMarkets Review আর্টিকেলে যে সকল তথ্য উপস্থাপন করেছি সেটি সম্পূর্ণরূপে আমাদের নিজেদের ট্রেডিং থেকে প্রাপ্ত অভিজ্ঞতা অনুসারে প্রকাশিত হয়েছে। উপরে উপস্থাপিত সকল তথ্য শতভাগ সঠিক এবং এটি কোনও ধরনের বিজ্ঞাপন কিংবা প্রচারণা করার উদ্দেশে প্রকাশিত হয়নি। যদি আমাদের এই রিভিউ সম্পর্কে কোনও ধরনের মতামত, প্রশ্ন, নিজ অভিজ্ঞতা জানাতে চান তাহলে আমাদের ইমেইল কিংবা নিচের কমেন্ট সেকশনে লিখে জানাতে পারেন।

রিভিউ স্কোর
এক্সিকিউশন টাইম
ফান্ড প্রসেসিং টাইম
ফান্ড সিকিউরিটি
ব্রোকার সাপোর্ট সিস্টেম
বোনাস এবং প্রমোশন
লিভারেজ
স্প্রেড
পূর্বের আর্টিকেলXM ব্রোকারে ফান্ড ডিপোজিট প্রক্রিয়া
পরবর্তী আর্টিকেলICMarkets ব্রোকারের আদ্যোপান্ত জানুন
FX Bangladesh
নতুনদের ফরেক্স ট্রেডিং সংক্রান্ত সকল ধরণের সহায়তা করার জন্য ,ফরেক্স বাংলাদেশ কাজ করে যাচ্ছে। ইতিমধ্যেই আমরা প্রায় ২২০০+ অধিক ট্রেডারকে, ফরেক্স ট্রেডিং সংক্রান্ত সঠিক দিক নির্দেশনা প্রদান করে আসছি এবং আমাদের এই অগ্রযাত্রা অব্যাহত থাকবে বলে আশা করি। ফরেক্স ট্রেডিং সংক্রান্ত আপনার যেকোনো সহায়তার জন্য আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন। ধন্যবাদ ।

12 COMMENTS

  1. আইছি মারকেট এ মাস্টার কার্ড ছাপট করেনা কেন, কার্ড পাইওনিয়ার?

    • কমেন্ট এর জন্য ধন্যবাদ।
      পেওনিয়ার কার্ড যারা অনলাইনে ফ্রি-ল্যান্সার আছেন তাদের ব্যবহার করার জন্য। এটি কোনও ফরেক্স ব্রোকারে সাপোর্ট করে না। ফান্ড ডিপোজিট করার সবথেকে সহজ মাধ্যম হচ্ছে স্ক্রিল। বিস্তারিত – https://fxbd.co/skrill

  2. আই সি মার্কেট এর স্কাল্পিং এর নূন্যতম সময় কত

    • কমেন্ট এর জন্য ধন্যবাদ।
      স্কাল্পিং এর কোনও ন্যুনতম সময়ের বাধ্যবাধকতা নেই। আপনি যেকোনো সময় গৃহীত এন্ট্রি ক্লোজ করতে পারবেন। বিস্তারিত – https://fxbd.co/icmarkets

  3. আসসালাম আলাইকুম,আমি অনেক আগে ফরেস্ক মার্কেট এর প্রশিক্ষণ নিয়েছি এবং ডিপোজিট করে সব টাকা লস করে ফেলেছি।আমি যাদের মাধ্যমে ডিপোজিট করেছিলাম প্রথমে বলেছিল সকল ধরণের সহযোগিতা করবে কিন্তু কোন প্রকার সহযোগিতা করেনি।
    আমি আবার নিজে বুঝেশুনে কাজ করতে চাই।প্রথমে আপনাদের সহযোগিতা চাই।যদি সহযোগিতা করতে চান তাহলে।
    ১.একাউণ্ট ওপেন করার নিয়ম, ২.পাপেল কার্ড ওপেন করার নিয়ম, ৩.টাকা জমা দেওয়ার নিয়ম ইত্যাদি বিষয় নিয়ে আপনাদের সাথে যোগাযোগ করতে ফোন নং টা যদি পাঠান

    • কমেন্ট করার জন্য ধন্যবাদ।
      কোন ব্রোকারে একাউন্ট রেজিস্টার করতে চান সেটির নাম জানাবেন আমাদের। ২. বাংলাদেশ থেকে পেপাল একাউন্ট ব্যবহার করার সুযোগ নেই। ফরেক্স ব্রোকারে ডিপোজিট করার জন্য অনুগ্রহ করে স্ক্রিল একাউন্ট ব্যবহার করতে পারেন। বিস্তারিত – https://fxbd.co/skrill ৩. বিদ্যমান মহামারী জনিত কারনে আমাদের অফিসিয়াল কার্যক্রম এবং ফোন সাপোর্ট বর্তমানে বন্ধ রয়েছে। আপনার যেকোনো সমস্যা আমাদের ইমেইল করে জানাতে পারেন – info@fxbangladesh.com

  4. আসসালামু আলাইকুম,
    ধন্যবাদ আমার ম্যাসেজ এর উত্তর দেওয়ার জন্য।আপনাদের সাথে কথা বলতে চাই।যে ফোন নং টা দিয়েছেন সেটিতে লাইন পাওয়া যাচ্ছে না।অনুগ্রহপূর্বক অন্য কোন ফোন নং থাকলে পাঠান।

    • মতামত প্রদানের জন্য ধন্যবাদ। বিদ্দমান মাহামারি জনিত কারনে আমাদের সকল অফিসিয়াল কার্যক্রম বর্তমানে বন্ধ রয়েছে। যার কারনে আমাদের সকল ফোন সাপোর্ট নাম্বারও বন্ধ রয়েছে। বিশেষ কিছু জানার থাকলে অনুগ্রহ করে কমেন্ট কিংবা ইমেইল করে জানাতে পারেন। – info@fxbangladesh.com

  5. করোনা মহামারির কারণে মার্কেট তো বন্ধ নাই তাহলে গ্রাহক কী ভাবে সেবা পাচ্ছে? ফরেস্ক মার্কেটে ডিপোজিট করতে স্ক্রীল এর কথা বলছেন এটা কী ভাবে পাব?টাকা উঠাতে হলে কী ভাবে উঠাব?
    আপনাদের কাছ থেকে কী কী সহযোগিতা পাব?

    • মহামারী জনিত কারনে আমাদের অফিসিয়াল কার্যক্রম যেমন ক্লায়েন্ট মিটিং, এপয়েন্টমেন্ট সুবিধা, ফোন সাপোর্ট বন্ধ আছে। এছাড়া, আমাদের অনলাইন ট্রেনিং, কমিউনিটি, নিউজ, এনালাইসিস সবকিছুই স্বাভাবিক নিয়মে চলছে। এটি আমাদের ওয়েবসাইট ঘুরে দেখলেই বুঝতে এবং জানতে পারবেন। Skrill একাউন্ট এর বিস্তারিত এই আর্টিকেল থেকে জানতে পারবেন। লিংক – https://fxbd.co/E6bm5

কমেন্ট/প্রশ্ন করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here